SHARE
জেইসি’র ৫ম সভা
জেইসি’র ৫ম সভা

বাংলাদেশ-শ্রীলংকা জয়েন্ট ইকনোমিক কমিশনের (জেইসি) দু’দিনব্যাপী ৫ম সভা আজ শ্রীলংকার রাজধানী কলম্বোয় শুরু হচ্ছে।
এতে অংশ নিতে বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ সোমবার সন্ধ্যায়ই কলম্বোয় পৌঁছেছেন। তিনি বাংলাদেশের সরকারি ও ব্যবসায়ী মিলে ১৫ সদস্যের প্রতিনিধিদলের নেতৃত্ব দিচ্ছেন।
সরকারি প্রতিনিধিদলে অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগ, শিল্প মন্ত্রণালয়, বাংলাদেশ ইনভেস্টমেন্ট ডেভেলপমেন্ট অথরিটি, বাণিজ্য মন্ত্রণালয়, স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয় এবং পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের প্রতিনিধিগণ রয়েছেন।
প্রতিনিধিদলে ৬ সদস্যের একটি ব্যবসায়ী প্রতিনিধিদলও আছেন।
ব্যবসায়ী প্রতিনিধিদলের মধ্যে রয়েছেন বিজিএমই এর সভাপতি মো. সিদ্দিকুর রহমান, প্রথম ভাইস-প্রেসিডেন্ট মঈনুদ্দিন আহমেদ মিন্টু, মেট্রোপলিটন চেম্বার কমার্স এ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির (এমসিসিআই) প্রেসিডেন্ট সৈয়দ নাসিম মঞ্জুর, এফবিসিসিআই’র প্রথম ভাইস প্রেসিডেন্ট মো. শফিউল ইসলাম (মহিউদ্দিন), ঢাকা চেম্বার অব কমার্স এ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রি’র সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট হুমায়ুন রশীদ এবং এফবিসিসিআই’র পরিচালক শেখ ফাহিম।
সভায় যোগদানের পাশাপাশি বাণিজ্যমন্ত্রী শ্রীলংকার ও বাংলাদেশের ব্যবসায়ীদের মধ্যে বাণিজ্য ও বিনিয়োগ নিয়ে আলোচনা সভায় যোগ দেবেন।
এছাড়া তিনি শ্রীলংকার অর্থমন্ত্রী এবং শিল্প ও বাণিজ্য মন্ত্রীর সঙ্গেও বৈঠক করবেন।
বর্তমানে বাংলাদেশের সঙ্গে শ্রীলংকার প্রায় ৭৬ মিলিয়ন মার্কিন ডলারের বাণিজ্য হচ্ছে। গত ২০১৫-২০১৬ অর্থ বছরে বাংলাদেশ শ্রীলংকা থেকে আমদানি করেছে ৪৫ মিলিয়ন মার্কিন ডলারের পণ্য এবং একই সময়ে রপ্তানি করেছে ৩০.৪৫ মিলিয়ন মার্কিন ডলারের পণ্য। বাংলাদেশের ঘাটতি বাণিজ্য ১৪.৫৫ মিলিয়ন মার্কিন ডলার।
শ্রীলংকার বাজারে তৈরী পোশাক, ওষুধ, বৈদ্যুতিক সামগ্রী, পাটজাত পণ্যসহ বেশ কিছু বাংলাদেশী পণ্যের ব্যাপক চাহিদা রয়েছে। এ ক্ষেত্রে শ্রীলংকার বাজারে শুল্কমুক্তসহ বিভিন্ন ব্যবসায়ীক সুবিধা প্রদান করা হলে রপ্তানি অনেক বাড়বে।
২০১২ সালের ৭ ও ৮ মার্চ ঢাকায় বাংলাদেশ-শ্রীলংকা জয়েন্ট ইকনোমিক কমিশনের ৪র্থ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here