SHARE
আগামী বছর আসতে পারে অস্ট্রেলিয়া
আগামী বছর আসতে পারে অস্ট্রেলিয়া

ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার প্রধান নির্বাহী জেমস সাদারল্যান্ড জানিয়েছেন, দুবাইয়ে সদ্য সমাপ্ত আইসিসি সভায় ব্যাপারটি নিয়ে কথা বলেছেন দুই দেশের ক্রিকেট কর্তারা।

“বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের কর্তাদের সঙ্গে ‘অফ লাইনে’ আলোচনা হয়েছে আমাদের। তারা জানে এবং বুঝতে পেরেছে যে স্থগিত হওয়া সফরটি করতে আমরা দায়বদ্ধ। অবশ্যই নিরাপত্তার ব্যাপারটি খতিয়ে দেখতে হবে আমাদের। তবে বাংলাদেশ সফরে যেতে এবং সেখানে খেলতে আমরা মুখিয়ে আছি।”

বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের প্রধান নির্বাহী নিজাম উদ্দিন চৌধুরী বিডিনিউজ টোয়েন্টিফোর ডটকমকে বলেন,

“ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়ার সঙ্গে আমাদের কথা হয়েছে। আগামী বছরই অস্ট্রেলিয়ার সফর হওয়ার সম্ভাবনা মোটামুটি চূড়ান্ত পর্যায়ে আছে। এছাড়াও ২০২৩ সাল পর্যন্ত এফটিপিতে থাকা অস্ট্রেলিয়ার সঙ্গে আমাদের সব সিরিজও চূড়ান্ত হওয়ার আলোচনা শেষ পর্যায়ে আছে।”

আগামী বছর ইংল্যান্ডে আইসিসি চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফিতে খেলবে দু দলই। এরপর জুলাইয়ে দেশের মাটিতে পাকিস্তানের বিপক্ষে ২ টেস্ট, ৩ ওয়ানডে ও ১ টি-টোয়েন্টির সিরিজ খেলার কথা বাংলাদেশের। অগাস্টেই আবার বাংলাদেশ যাবে অস্ট্রেলিয়াতে, ২ টেস্ট ও ৩ ওয়ানডে খেলতে। অক্টোবরে বাংলাদেশের আরেকটি সফর দক্ষিণ আফ্রিকায়।

অন্যদিকে জুনে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফির পর অক্টোবর পর্যন্ত অন্য কোনো সফর নেই অস্ট্রেলিয়ার। তাই জুলাইয়ের শেষ দিকে বাংলাদেশের অস্ট্রেলিয়া সফরের আগে, কিংবা বাংলাদেশের অস্ট্রেলিয়া সফরের পরে সেপ্টেম্বরে বাংলাদেশ সফরে আসতে পারে অস্ট্রেলিয়া। পিঠাপিঠি সিরিজ আয়োজন নিয়েই এখন কথা বলছে দুই দেশের বোর্ড।

২ টেস্টের সিরিজ খেলতে গত বছরের সেপ্টেম্বরে বাংলাদেশে আসার কথা ছিল অস্ট্রেলিয়ার। দলও ঘোষণা করেছিল তারা। কিন্তু নিরাপত্তা ঝুঁকির কারণ দেখিয়ে শেষ মুহূর্তে সফর স্থগিত করে দেয় ক্রিকেট অস্ট্রেলিয়া।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here